1. pirojpurpost24@gmail.com : admin :
  2. kumarshuvoroy@gmail.com : Shuvo Roy : Shuvo Roy
  3. epiropur@gmail.com : e p : e p
  4. eshuvo1@gmail.com : shuvo roy : shuvo roy
স্বরূপকাঠি পল্লী বিদ্যুৎ ইঞ্জিনিয়ার পরিমলের বদলি গুঞ্জনে স্বস্তি নেমেছে গ্রাহকদের মধ্যে | পিরোজপুর পোষ্ট ২৪
মঙ্গলবার, ০৯ অগাস্ট ২০২২, ১১:৪৪ পূর্বাহ্ন

স্বরূপকাঠি পল্লী বিদ্যুৎ ইঞ্জিনিয়ার পরিমলের বদলি গুঞ্জনে স্বস্তি নেমেছে গ্রাহকদের মধ্যে

  • শেষ হালনাগাদ : বুধবার, ১৪ আগস্ট, ২০১৯
  • ১২৪২ জন সংবাদটি দেখেছেন

মোঃ হাবিবুল্লাহ  : গ্রাহকদের সাথে দুর্ব্যবহার,কারণে অকারণে লোডশেডিংসহ নানা অনিয়মের মৌখিক অভিযোগ মাথায় নিয়ে অবশেষে স্বরূপকাঠি পল্লী বিদ্যুতের পূর্বঞ্চাল শাখার কর্মস্থল থেকে বদলি হচ্ছেন জুনিয়র ইঞ্জিনিয়ার পরিমল চন্দ্র গাইন বলে গুঞ্জন উঠছে।
গত মঙ্গলবার (১৩ আগষ্ট) নেছারাবাদ উপজেলা প্রশাসনের ফেসবুক আইডি থেকে‘বিদ্যুৎ সাপ্লাইয়ে“পরিমল প্রভাব” পড়তে শুরু করেছে বলে জনগন আশংকা প্রকাশ করছেন এবং ক্ষোভও জানাচ্ছেন। কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষন করছি’। এক ষ্ট্যাটাস দেওয়ার পর থেকে তার বদলি কার্যক্রম শুরু হয়েছে বলে এ গুঞ্জন শুরু হয়েছে।
স্বরূপকাঠি কৌড়িখাড়া পল্লী বিদ্যুৎ শাখা জোনাল অফিস সূত্রে জানাগেছে,নেছারাবাদ উপজেলা প্রশাসনের ওই ফেসবুক ষ্ট্যাটাস ও গ্রাহকদের নানান মৌখিক অভিযোগে আগামী দু‘ থেকে তিন দিনের মধ্যে জুনিয়র ইঞ্জিনিয়ার পরিমল চন্দ্র গাইন স্বরূপকাঠির কর্মস্থল থেকে বদলি হতে চলছেন। উপজেলার জোনাল অফিস সূত্রেও পরিমলের বদলির গুঞ্জন বিষয়টি একাধিক সূত্রে জানাগেছে।
এতে করে স্বস্তি নেমে এসেছে স্বরূপকাঠি পূর্বাঞ্চল শাখার কয়েকহাজার বিদ্যুৎ গ্রাহকদের মধ্যে।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে জুনিয়র ইঞ্জিনিয়ার পরিমল চন্দ্র গাইন বলেন, বর্তমানে স্বরূপকাঠিতে বিদ্যুতের যেটুকু সমস্যা হচ্ছে তা লোড শেডিং নয়, বিদ্যুৎ বিভ্রাট মাত্র। মুলত ভান্ডারিয়া থেকে আগত মুল সংযোগ ও মাজে মাজে আবহাওয়া খারাপ থাকার কারনে মাজে মধ্যে বিদ্যুতের একটু সমস্যা হয়েছে। এখানে তার কোন হাত নেই বলে ইঞ্জিনিয়ার পরিমল দাবী করেন।
জানাযায়,উপজেলায় আবাসিক,বাণিজ্যিক,দাতব্য,শিল্প ও সড়কবাতি মিলিয়ে মোট ৫৪ হাজার ৬৩৯টি সংযোগ রয়েছে। যেখানে মোট বিদ্যুৎ চাহিদা ১২ মেঘাওয়াট। এর মধ্যে উপজেলার দশটি ইউনিয়নের স্বরূপকাঠির সন্ধ্যা নদীর পূর্বপাড়ের চারটি ইউনিয় ও একটি পৌরসভায় মোট সাড়ে পাঁচ মেঘাওয়াট বিদ্যুৎ চাহিদা রয়েছে। চাহিদানুয়ায়ি সেই পূর্বপাড়ে বিদ্যুতের কোন ঘাটটি না থাকলেও গত রমজানের পড় থেকেই উপজেলার পূর্ব পাড়ে দিনে পাঁচ থেকে সাত বার কারণে অকারণে বিদ্যুৎ থাকেনা। কখনো কখনো বিদ্যুৎ চলে গিয়ে দেড় থেকে দু‘ঘন্টায়ও দেখা মেলেনা। লোভোল্টেজ, ঘন ঘন বিদ্যুতের ভেলকিবাজিতে এতে করে বিপাকে পড়ে উপজেলার বিদ্যুৎ নির্ভর ভিবিন্ন ব্যবসা-প্রতিষ্ঠান, অফিস আদালত। আর এসবের মুল কারন হিসাবে উপজেলার পূর্ব পাড়ের জুনিয়র ইঞ্জিনিয়ার পরিমল চন্দ্র গাইনকে দায়ি করে আসছিল গ্রাহকরা।
উপজেলার পশ্চিমাঞ্চলে অবস্থিত স্বরূপকাঠি কৌড়িখাড়া পল্লী বিদ্যুৎ শাখা জোনাল অফিসের ডেপুটি জেনালেন ম্যানেজার(ডি,জি,এম) মো. আনোয়ার হোসেন জানান, স্বরূপকাঠিতে বিদ্যুতের কোন লোডশেডিং নেই। এখানে ৪৭ হাজার ৯৪১ আবাসিক, ৫ হাজার ১৯০ বাণিজ্যিক, ৯৮২দাতব্য, ৪৮১ শিল্প এবং ৪৫টি সড়ক মিলিয়ে মোট ৫৪ হাজার ৬৩৯টি সংযোগ রয়েছে। উপজেলায় মোট বিদ্যুৎ চাহিদা ১২ মেঘাওয়াট। সেই চাহিদা অনুযায়ি এখানে বিদ্যুৎ পাওয়া যাচ্ছে। তাই এখানে বিদ্যুতের কোন লোডশেডিং নেই বলে তিনি দাবী করেন। তবে যেটুকু হচ্ছে তা লাইনের ত্রুটির কারনে হচ্ছে। তবে গ্রাহকদের সাথে নানা র্দুব্যবহার ও ভিবিন্ন ত্রুটিবিচ্যুটির কয়েকটি বিষয়টি নিয়ে জুনিয়র ইঞ্জিনিয়ার পরিমলের ব্যাপারে এলাকাবাসির মৌখিক অভিযোগ শোনা ও নেছারাবাদ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার(ইউএনও) মহোদয়ের ফেসবুক ষ্ট্যাটাস দেখার পর তার ব্যপারে পিরোজপুর উর্ধ্বতনদের জানানো হয়েছে বলে তিনি জানান।

 

আরো সংবাদ
পিরোজপুর পোষ্ট ২৪ ডটকম - ২০১৮-২২। (অনুমতি ছাড়া এই ওয়েবসাইটের ছবি, ভিডিও ও সংবাদ কপি করা থেকে বিরত থাকুন)
Theme Customized By PIROJPURPOST24
কারিগরি সহায়তায়: Website-open
x