1. pirojpurpost24@gmail.com : admin :
  2. kumarshuvoroy@gmail.com : Shuvo Roy : Shuvo Roy
  3. epiropur@gmail.com : e p : e p
  4. eshuvo1@gmail.com : shuvo roy : shuvo roy
ইন্দুরকানীতে লবন কেনার হিড়িক, গুজব বন্ধে প্রশাসনের মাইকিং | পিরোজপুর পোষ্ট ২৪
শুক্রবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:০১ অপরাহ্ন

ইন্দুরকানীতে লবন কেনার হিড়িক, গুজব বন্ধে প্রশাসনের মাইকিং

  • শেষ হালনাগাদ : মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর, ২০১৯
  • ৮১০ জন সংবাদটি দেখেছেন

ইন্দুরকানী প্রতিনিধিঃ
পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে লবনের দাম বৃদ্ধি গুজবে মুদি দোকান গুলোতে লবন কেনার হিড়িক পড়েছে। এতে মুদি দোকান সহ যেসকল দোকানে লবন বিক্রয় করত তাদের অনেক দোকানেই লবনের সংকট দেখা দিয়েছে। সঙ্গলবার বিকালে উপজেলার কয়েকটি বাজার ঘুরে দেখা যায় মুদি দোকান গুলোতে রয়েছে লবন ক্রয়ের ভিড়। আর বিক্রয় হচ্ছে স্বভাবিকের চেয়ে একটু বেশী দামে।
তবে গুজব বন্ধে জনসাধারণ ও দোকান্দারদের সচেতন করার লক্ষে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রতিটি হাটে বাজারে মাইকিং করা হচ্ছে। কোন দোকান্দার খুচরা ক্রেতার কাছে ১ কেজির বেশি লবন বিক্রি করতে পারবে না এবং নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে ১ টাকাও বেশি নিতে পারবে না। এবং কোন ক্রেতা ১ কেজির উপরে ক্রয় করতে পারবে না।

চন্ডিপুর বাজারে কয়েকটি দোকানে ঘুরে দেখাযায় এক এক দোকান্দার আজকের দিনে ৫ থেকে ১৫ মন লবন বিক্রয় করেন। তবে বিগত দিনের চেয়ে দাম এটু বেশিই নিচ্ছে তাও আবার কৌশলে। প্যাকেটের গায়ে মুল্য অনুযায়ী বিক্রয় হচ্ছে এসব লবন যা বিগত সময় প্যাকেট মূল্য ৪০ টাকা বিক্রয় হতো ৩৫ টাকায় কিন্তু আজ ৪০ টাকা মূল্যেই বিক্রয় হচ্ছে এসব লবন। একারনে দোকান্দার গণ অধিক মুনাফা অর্জন করছেন।
চন্ডিপুর বাজারের লবন ব্যবসায়ীরা জানায় লবনের দাম বাড়েনি তবে ক্রেতার সংখ্যা বিগত দিনের চেয়ে অনেক বেশি। আর অনেকেই বস্তা সহ লবন ক্রয় করার জন্য আসেন। আমরা কারো কাছে ৫ কেজির উপরে লবন বিক্রি করিনা।
ইন্দুরকানী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হাবিবুর রহমান জানান, সারাদেশে লবনের দান স্থিতিশীল রয়েছে পূর্বের দামেই বিক্রি হচ্ছে লবন। আমরা লবনের সিন্ডিকেট এর কথা শুনেছি বর্তমানে ইন্দুরকানী বাজারে অবস্থান করছি এখানকার দোকানগুলোতে আগের দামেই বিক্রয় করা হচ্ছে লবন। আর প্রশাসনের পক্ষ থেকে বাজারে বাজারে মাইকিং করে লবনের দাম বৃদ্ধি গুজবে কান না দেয়ার জন্য জনসাধারনকে সচেতন করা হচ্ছে।
এ বিষয়ে ইন্দুরকানী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হুসাইন মুহাম্মদ আল মুজাহিদ বলেন, লবনের সিন্ডকেট এর বিষয়টি সম্পুর্ন মিথ্যা। আমি সিন্ডিকেট এর কথা শুনতে পেয়ে উপজেলার বিভিন্ন বাজার পরিদর্শন করি এবং এখানকার বড় পাইকারী মোকাম পাড়েরহাট বন্দরে গিয়ে অনেক গুদাম পরিদর্শন করি। তাতে দেখাযায় পর্যাপ্ত পরিমানে লবন মজুদ রয়েছে আর কোথাও কোন দাম বৃদ্ধির ঘটনা ঘটেনি। লবন সিন্ডকেট গুজব বন্ধে প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রতিটি হাটে বাজারে সচেতনতা মূলক মাইকিং করা হচ্ছে। তবে কেউ অতিরিক্ত দামে লবন বিক্রয় বা ক্রয় করলে তাদেরকে আইনের আওতায় আনা হবে।

আরো সংবাদ
পিরোজপুর পোষ্ট ২৪ ডটকম - ২০১৮-২২। (অনুমতি ছাড়া এই ওয়েবসাইটের ছবি, ভিডিও ও সংবাদ কপি করা থেকে বিরত থাকুন)
Theme Customized By PIROJPURPOST24
কারিগরি সহায়তায়: Website-open
x